আজ: ২৬ ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ইং, সোমবার, ১৪ ফাল্গুন, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, ১০ জমাদিউস-সানি, ১৪৩৯ হিজরী, রাত ১:৪৮
সর্বশেষ সংবাদ
অপরাধ ফতুল্লায় গৃহবধূকে শ্বাসরোধে হত্যা

ফতুল্লায় গৃহবধূকে শ্বাসরোধে হত্যা


পোস্ট করেছেন: News Desk | প্রকাশিত হয়েছে: ১০/২২/২০১৭ , ৪:১৩ অপরাহ্ণ | বিভাগ: অপরাধ


নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লায় মঞ্জুরী বেগম (২৩) নামে এক গৃহবধূকে শ্বাসরোধ করে হত্যার অভিযোগ পাওয়া গিয়েছে স্বামী মাসুদ খানের (৩৩) বিরুদ্ধে। শনিবার দিবাগত রাতে ফতুল্লার ধর্মগঞ্জ পাকাপুল এলাকায় আমজাদ ঢালীর বাড়িতে ঘটনাটি ঘটে। মাসুদ খান ও মঞ্জুরী বেগম সেখানে ভাড়ায় থাকতেন।

খবর পেয়ে ফতুল্লা মডেল থানা পুলিশ ভোর পৌনে ৫টায় ঘটনাস্থল থেকে নিহতের লাশ উদ্ধার করে। এরপর ময়না তদন্তের জন্য নারায়ণগঞ্জ জেনারেল হাসপাতলের মর্গে পাঠায়। পুলিশ নিহত মঞ্জরী বেগমের স্বামী মাসুদ খানকে গ্রেফতার করে।

এ ঘটনায় নিহত গৃহবধুর বড় ভাই শেখ ফরিদ বাদী হয়ে মাসুদ খান ও তার ছোট ভাই জাহাঙ্গীরকে আসামি করে ফতুল্লা মডেল থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন।

মামলা সূত্রে জানা গেছে, দীর্ঘ ৮ বছর আগে রাজবাড়ী জেলার কল্যাণপুর গ্রামের অহিদ খানের ছেলে মাসুদ খানের সঙ্গে ফরিদপুর জেলার চর ভদ্রাসন থানার বিএস ডাঙ্গী গ্রামের শেখ মান্নানের মেয়ে মঞ্জুরী বেগমের পারিবারিক ভাবে বিয়ে হয়। তাদের ৮ বছরের সংসার জীবনে কোন সন্তান জন্ম নেয়নি। বিধায় প্রায় দেড় বছর আগে মঞ্জরী বেগমের অনুমতি না নিয়ে তার স্বামী মাসুদ খান লাবনী নামে এক মেয়েকে বিয়ে করে।

দ্বিতীয় বিয়ের পর থেকে মঞ্জরী বেগমকে বাড়ি থেকে বিতাড়িত করার লক্ষে ২য় স্ত্রীর যোগসাজসে প্রায় সময় তার ওপর নির্যাতন করত মাসুদ খান। এমতাবস্থায় গত শনিবার রাতে নিজ কক্ষে মঞ্জরী বেগমকে শ্বাসরোধ করে নির্মমভাবে হত্যা করে স্বামী মাসুদ খান।

এদিকে, ঘটনার পর মাসুদ খান বিষয়টি ধামাচাপা দেয়ার জন্য প্রথমে হৃদরোগে আক্রান্ত এবং পরবর্তীতে আত্মহত্যা বলে প্রচার করে। কিন্তু ঘটনাটি হত্যা বলে পুলিশের সন্দেহ হলে নিহতের স্বামী মাসুদ খানকে আটক করে জিজ্ঞাসাবাদ করা হলে সে তার স্ত্রীকে শ্বাসরোধ করে হত্যা করেছে বলে স্বীকারোক্তি দেয়।

এই হত্যাকাণ্ডের সঙ্গে ঘাতক মাসুদ খানের ছোট ভাই জাহাঙ্গীর জড়িত থাকতে পারে বলে ধারণা করছে পুলিশ।

Comments

comments

Close