আজ: [english_date], [bangla_day], [bangla_date], [hijri_date], [bangla_time]
সর্বশেষ সংবাদ
খেলাধূলা টি-টোয়েন্টিতে পাকিস্তানের কাছে ১৪৩ রানে হেরেছে ওয়েস্ট ইন্ডিজ

টি-টোয়েন্টিতে পাকিস্তানের কাছে ১৪৩ রানে হেরেছে ওয়েস্ট ইন্ডিজ


পোস্ট করেছেন: নিউজ ডেস্ক | প্রকাশিত হয়েছে: 04/02/2018 , 10:36 am | বিভাগ: খেলাধূলা



ওয়েস্ট ইন্ডিজ দলে নেই ক্রিস গেইল, কাইরন পোলার্ড, সুনিল নারাইন, ড্যারেন স্যামির মতো তারকারা।পাকিস্তানের ছুড়ে দেয়া ২০৪ রানের চ্যালেঞ্জটা মোটেই মোকাবেলা করতে পারেনি তারকাবিহীন দলটি। আমির-নওয়াজদের বোলিং তোপে ১৩.৪ ওভারে মাত্র ৬০ রানে গুটিয়ে যায় সফরকারীরা।

টি-টোয়েন্টি ইতিহাসে এটিই ক্যারিবীয়দের সবচেয়ে কম রানে অলআউট হওয়ার লজ্জা। আগেরটি ছিল ৭৯ রানের। ২০১০ সালে পোর্ট অব স্পেনে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে এ স্কোর গড়ে তারা।

ওয়েস্ট ইন্ডিজের মাত্র তিন ব্যাটসম্যান দুই অঙ্কের কোঠা স্পর্শ করতে পেরেছেন। স্যামুয়েলস ১৮, পল ১০ ও এমরিতের ১১ রানই তাদের ব্যাটিং দৈন্যদশার শো। বীরাস্বামী পারমল ইনজুরিতে থাকায় ১০ জন নিয়েই ব্যাটিং শেষ করতে হয়েছে তাদের।

পাকিস্তানের হয়ে দুটি করে উইকেট নিয়েছেন মোহাম্মদ আমির, মোহাম্মদ নওয়াজ ও শোয়েব মালিক। আমন্ত্রণ জানিয়ে আনা অতিথিদের এক রকম এ ত্রয়ীই গুঁড়িয়ে দিয়েছেন।

পাকিস্তানের ১৪৩ রানের জয়টি টি-টোয়েন্টি ইতিহাসে দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ব্যবধানে জয়। এর আগে ২০০৭ সালে কেনিয়ার বিপক্ষে রেকর্ড ১৭২ রানে জেতে শ্রীলংকা।

এর আগে করাচিতে টস হেরে ব্যাট করতে নামা পাকিস্তানকে উড়ন্ত সূচনা এনে দেন ফখর জামান ও বাবর আজম। ওপেনিং জুটিতে তারা গড়েন ৪৬ রানের জুটি। বাবরের বিদায়ে ভাঙে বিপজ্জনক হয়ে ওঠা জুটি। রানআউটে কাটা পড়েন ঝড় তোলা ফখর। ২৪ বলে তিনি করেন ৩৯ রান।

পরে হুসাইন তালাতের সঙ্গে সরফরাজের ৭৫ রানের জুটি বড় সংগ্রহের ভিত গড়ে দেয় পাকিস্তানকে। রানআউট হওয়ার আগে ৩৭ বলে সর্বোচ্চ ৪১ রান করেন তালাত। অধিনায়ক সরফরাজ ফেরেন ২২ বলে ৩৮ রানের টর্নেডো ইনিংস খেলে।

প্রথম চার টপ অর্ডারের গড়ে দেয়া ভিতের ওপর দাঁড়িয়ে তাণ্ডব চালান শোয়েব মালিক। ফাহিম আশরাফের সঙ্গে তার ৪৭ রানের জুটিতে ২০৩ রানের স্কোর গড়ে পাকিস্তান। ১৪ বলে ২ ছক্কা ও ৪ চারে ৩৭ রানে অপরাজিত থাকেন মালিক। টি-টোয়েন্টিতে যৌথভাবে এটি পাকিস্তানের সর্বোচ্চ দলীয় সংগ্রহ। এর আগে এখানেই ২০০৮ সালে বাংলাদেশের বিপক্ষে একই সংগ্রহ পায় আনপ্রিডেক্টেবল দলটি।

সর্বোচ্চ রান ও হাত ঘুরিয়ে ১ উইকেট শিকার করে ম্যাচসেরা হয়েছেন তালাত। এ জয়ে ৩ ম্যাচ টি-টোয়েন্টি সিরিজে ১-০তে এগিয়ে গেল পাকিস্তান।

Comments

comments

Close